সন্তানের মুখে বিষ দেয়ার পর মায়ের আত্মহত্যা

0
1626
Print Friendly, PDF & Email

ডেস্ক নিউজ : ঠাকুরগাঁও রানীশংকৈল উপজেলায় কহিনুর কনিকা (২২) নামে এক মা তার তিন বছরের সন্তান মাহির মুখে বিষ দেয়ার পর নিজে গলায় দড়ি দিয়ে আত্মহত্যা করেছেন।

রোববার দুপুর ১টার দিকে উপজেলার বাচোর ইউনিয়ন সহদোর গ্রামের মানিকের স্ত্রী কহিনুরের মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ।

স্থানীয়রা জানায়, এলাকাবাসী কোহিনুরের মরদেহ ঘরে ঝুলতে দেখে থানায় খবর দেয়। পুলিশ মরদেহ উদ্ধার করে আর শিশুটি জীবিত আছে দেখে উন্নত চিকিৎসার জন্য রংপুরে পাঠানো হয়।

কহিনুরের বাবা কবির অভিযোগ করে বলেন, পারিবারিক কলহের জের ধরেই আমার মেয়ে আত্মহত্যা করেছে। আজ সকালে কহিনুর তার মায়ের সঙ্গে মোবাইল ফোনে কথা বলে। সে সময়ে তার মাকে কহিনুর বলে- রাতে তার স্বামী তাকে মারধর করেছে এবং তার কানে প্রচণ্ড ব্যথা অনুভব করছে। তার কথা বলতে সমস্যা হচ্ছে বলে ফোনটি রেখে দেয় সে।

রোববার দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে এলাকাবাসী শয়ন কক্ষে তার মরদেহ দড়িতে ঝুলতে দেখে রানীশংকৈল থানা পুলিশকে খবর দেয়। পরে ঘটনাস্থল থেকে ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ।

বিষয়টি নিশ্চিত করে রানীশংকৈল থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আব্দুল মান্নান বলেন, ঘটনার আসল বিষয় জানার চেষ্টা করছি আমরা। তদন্ত সাপেক্ষে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে বলেও জানান তিনি।

শেয়ার করুন