কালিয়াকৈরে জমি জবরদখলের অভিযোগ

0
1922
Print Friendly, PDF & Email

গাজীপুর প্রতিদিন ডেস্ক : গাজীপুরের কালিয়াকৈরে একব্যক্তির বৈধ জমিতে অবৈধভাবে প্রবেশ করে ২০/২৫ টি দোকানঘর ভাংচুর, নগদ টাকা পয়সা লুট এবং ওই জমি জবরদখলের চেষ্টার অভিযোগ পাওয়া গেছে। এঘটনায় মোঃ আজাদ রহমান খান নামে এক ব্যক্তি বৃহস্পতিবার বিকেলে থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন।

ঘটনাটি ঘটে গত মঙ্গলবার রাত ৮ ঘটিকার সময় উপজেলার হরিনহাটি এলাকায়।

মামলার অভিযোগ সূত্রে জানাযায়, উপজেলার হরিণহাটি এলাকার মোঃ আজাদ রহমান খান (৪০), পিতা মৃত. মমতাজ উদ্দিন খান, সাং হরিণহাটি, কালিয়াকৈর, গাজীপুর এবং তার মা, দুই ভাই ও চার বোন উপজেলার চান্দরা মৌজার আর এস ৪১৩ ও ৪১৭নং খতিয়ানে কয়েকটি দাগে ১৬৫ শতাংশ জমির পৈত্রিক সূত্রে মালিক হইয়া দীর্ঘদিন যাবৎ ভোগ দখলে নিয়ত আছে। এমনতাবস্তায় হঠাৎ গত ৩১/০৭/২০১৮ইং তারিখ রোজ মঙ্গলবার মামলায় উল্লেখিত ব্যক্তিগন ও সঙ্গীয় আরো ৪০/৫০ জন অজ্ঞাত সন্ত্রাসীকে নিয়ে দেশীয় অস্ত্র সস্ত্রে সজ্জিত হইয়া রাত ৮টার দিকে ওই জমিতে জোরপূর্বক অনাধিকার প্রবেশ করিয়া জমিতে থাকা ২০/২৫টি দোকান ভাংচুর করে প্রায় দশ লক্ষ টাকার ক্ষতি সাধন করে। এসময় জবরদখলকারীরা ওই ২৫টি দোকান থেকে নগদ অর্থসহ আনুমানিক প্রায় তিন কোটি টাকার মালামাল লুটপাট করে নিয়ে যায় এবং ওই জমি দখলের উদ্দেশে ভাউন্ডারী ওয়াল নির্মান করার চেষ্টা করে। পরে সংবাদ পাইয়া ওই জমির মালিক কতিপয় লোকজন সঙ্গে নিয়ে দখলে বাধা দিলে বিবাদীরা দেশীয় অস্ত্র সস্ত্র নিয়া তাকে মারার জন্য ধাওয়া করে। এসময় বিবাদীগন ওই জমির মালিককে হুমকি দেয় পুনরায় সে ওই জমিতে গেলে তাকে খুন করিয়া লাশ ওই জমিতে মাটি চাপা দেবে।

পরে এঘটনায় ভোগদখলে নিয়ত পৈত্রিকসূত্রে মালিক মোঃ আজাদ রহমান খান বাদী হয়ে কালিয়াকৈর থানায় মোঃ হেলাল উদ্দিন- কালিয়াকৈর উপজেলা বিএনপির সাধারন সম্পাদককে প্রধান আসামী করে ১২জনের নাম উল্লেখসহ আরো অজ্ঞাত ৪০/৫০ জনের নামে একটি অভিযোগ দায়ের করেন।

এব্যাপারে মামলার তদন্ত কর্মকর্তা থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) মোঃ মোশারফ হোসেন তুহিন বলেন, ঘটানায় থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। অভিযোগের ভিত্তিতে অভিযুক্ত ব্যক্তিদের গ্রেফতারের প্রক্রিয়া চলছে।

শেয়ার করুন